1. admin@aparadhatallasi.com : admin :
বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ০৫:১২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
সাতকানিয়ায় ১৭ টাকা পাওনাকে কেন্দ্র করে ছু রিকাঘা তে যুবককে হ ত্যা রংপুর বিভাগের ১৯ উপজেলা চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানের শপথগ্রহণ অনুষ্ঠিত রানীশংকৈলে জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা সপ্তাহের সমাপনি অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত ৫৩বছর বছর ধরে ঘাস বেচেই সংসার চলে ভূমিহীন অমলের ফুলবাড়ীতে ই‌রি-বোরো ধান সংগ্রহে উন্মুক্ত লটারি পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জে ফার্মেসীতে ফেনসিডিল সেবনের সময় পুলিশের হাতে আটক দুই ফুলবাড়ীতে রেমালের প্রভাব: পাকা ধান নিয়ে দুশ্চিন্তায় কৃষক তীব্র গরমে স্বস্তি দিচ্ছে তালের শাঁস ফুলবাড়ীতে জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা সপ্তাহ উদ্বোধন মাদারীপুরে সমাজসেবার দুই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের অভিযোগ

সাভার বিরুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যানের নামে অবৈধ রংয়ের কারখানা,কথিত লোকমান মিয়া-দৈনিক অপরাধ তল্লাশি 

  • আপডেট সময় : রবিবার, ১৬ জুলাই, ২০২৩
  • ২৫৪ বার পঠিত

সাভার উপজেলা প্রতিনিধিঃ

 

ঢাকার সাভার উপজেলার বিরুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সেলিম মন্ডলের নাম ভাঙ্গিয়ে বন বিভাগের জায়গা দখল করে অবৈধ ভাবে রঙ্গের কারখানা দিয়ে দিন যাবত বছরের পর বছর ধরে দেদারসে অবৈধ রংয়ের কারখানায় ব্যবসা পরিচালনা করে আসছে লোকমান মিয়া। তার কারখানাটি বিরুলিয়া ইউনিয়নের ছোট কালিয়াকোর ঈদগা মাঠের সংলগ্ন বন বিভাগের কালিয়াকোর বিটের কৃষিবিদের গেটের স্ব -নিকটে অবস্থিত। এলাকাবাসী বলছে লোকমান মিয়া কিছু জায়গা বলছে আমি খরিদ করেছি, কিন্তু এলাকাবাসী বলছে পাঁচ শতক জায়গা উনি কিনেছে কিন্তু উনি আশপাশে বন বিভাগের বিস্তীর্ণ জায়গা অবৈধভাবে দখল করে কারখানাটি করেছে, অন্তত এক বিঘা জায়গার উপর বর্তমানে কারখানা টি রয়েছে। এবং দীর্ঘদিন যাবত বন বিভাগের জায়গা দখল করে লোকমান মিয়া এই অবৈধ রংয়ের ফ্যাক্টরি চালিয়ে আসছে।

 

তাতে করে এলাকাবাসীর বিভিন্ন সমস্যায় ভুগছে এবং পরিবেশ দূষণও হচ্ছে আশপাশের ফসলাদি গবাদি পশু ধুলা বালি রংয়ের ডাস্ট মানুষের স্বাস্থ্যক ক্ষতিগ্রস্ত করছে এবং মানুষের শ্বাস কষ্টেরও কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। তাছাড়া আশপাশের এলাকা জুড়ে লাল রঙের ডাস্টের কারণে গাছপালা ক্ষেতের ফসল লাল বর্ণের হয়ে গেছে। এতে করে ফসল গাছপালা গবাদি পশু মানুষ সহ শিশু বাচ্চা সকলের অসুবিধা রোগ বেরাম সহ নানা সমস্যায় সম্মুখীন হচ্ছে। এলাকাবাসীর একটাই দাবি এই অবৈধ রঙের ফ্যাক্টরি বন্ধ করে দেওয়ার জন্য সাভার উপজেলা ইউএনও সাহেবের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে।

 

এ বিষয়ে বিরুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সেলিম মন্ডলের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমি কি কারখানার মালিক? তবে কি কারনে আমার নাম পরিচয় ভাঙ্গিয়ে অবৈধ কারখানাটি পরিচালনা করে আমার জানা নেই। আমি শুধু জানি ওখানে একটি রংয়ের কারখানা রয়েছে। কারখানার মালিক লোকমান মিয়া যা বলেছে সম্পূর্ণ মিথ্যা কথা বলেছে, আমি এ বিষয়ে কিছুই জানিনা। হ্যাঁ তবে আপনার কাছে জানলাম, আমি খোঁজখবর নিয়ে ব্যবস্থা নিচ্ছি। সাভার কালিয়াকোর বন বিভাগের বিট কর্মকর্তার সাথে এ বিষয়ে যোগাযোগের চেষ্টা করার পরেও তাকে পাওয়া যায়নি। এবং তার মুঠোফোনে একাধিকবার চেষ্টা করেও তিনি ফোনটি রিসিভ করেন নাই।

 

এ সকল বিষয়ে কারখানা মালিক লোকমান মিয়ার কাছে জানতে চাইলে, তিনি আমাদেরকে কোন সুদত্তর দিতে পারেননি তবে তিনি বলেন, বিরুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আমার নাতি হয়। আমি তার নানা, চেয়ারম্যান সেলিম মন্ডল আমার এ কারখানা দেখভাল করেন।

 

বার্তা প্রেরক :
মো. মাইনুল ইসলাম, সাভার উপজেলা প্রতিনিধি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২৩ দৈনিক অপরাধ তল্লাশি

Theme Customized By Shakil IT Park